আজ রবিবার,২২শে জুলাই, ২০১৮ ইং,৭ই শ্রাবণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ১১:৫৫
  • সোনাগাজীতে জনপ্রিয়তার শীর্ষে ইউপি চেয়ারম্যান মোশারফ হোসেন মিলন
  • খুলনার আলোচিত ইউপি চেয়ারম্যান মিহিরের বিরুদ্ধে বাড়ি দখল ও মারধরের অভিযোগে আদালতে মামলা
  • জনসেবাই আমার একমাত্র উদ্দেশ্য: ২ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর পদপ্রার্থী এডভোকেট এ.কে.এম মুরতাজা আবেদীন
  • হারানো বিজ্ঞপ্তি
  • ১২০ নারীকে ধর্ষণ-ভিডিও ধারণ, মন্দিরের পুরোহিত গ্রেফতার
  • আসন্ন বিসিসি নির্বাচনে মেয়র, কাউন্সিলর প্রার্থীদের চলছে সর্বোচ্চ প্রচারনা
  • মরণ নেশা ইয়াবার ছোবলে বাকেরগঞ্জে ঘরে ঘরে অসান্তি

গর্ভাবস্থায় রক্তক্ষরণ হলে যা করবেন

গর্ভাবস্থায় রক্তক্ষরণ হলে যা করবেন

গর্ভাবস্থায় রক্তক্ষরণ হলে যা করবেন

স্বাস্থ্য ডেস্ক: গর্ভাবস্থায় রক্তক্ষরণ যে কোন গর্ভবতী মায়ের জন্য বেশ ভয়ের ব্যাপার। মাসিক বন্ধ হওয়ার পর একজন “মা” ভাবেন তিনি গর্ভবতী হয়েছেন এবং তার আর রক্ত যাবেনা-এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু নানা কারণে গর্ভাবস্থায় মাসিকের রাস্তায় রক্তক্ষরণ হতে পারে। গর্ভাবস্থায় বিভিন্ন সময়ে রক্তপাত হতে পারে। পুরো গর্ভাবস্থাকে তিন ভাগে ভাগ করলে প্রথম তিন মাস, মাঝের তিন মাস ও শেষের তিন মাসের যে কোন সময় রক্তক্ষরণ হতে পারে।

প্রথম তিন মাসের রক্তক্ষরণের কারণঃ
০ নানা কারনে গর্ভাবস্থায় প্রথম তিন মাসে রক্তক্ষরণ হতে পারে। শতকরা ২০-৩০ ভাগ গর্ভবতী মায়ের প্রথম তিন মাসে রক্তক্ষরণ হতে পারে। এর মধ্যে অর্ধেকের বাচ্চার কোন সমস্যা হয় না, পুরো গর্ভাবস্থা কাটিয়ে পূর্ণ সন্তান প্রসব করা হয়।

০ বাচ্চা নষ্ট হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনাই প্রথম তিন মাসে রক্তক্ষরণের প্রধান কারণ। অনেক সময় অল্প অল্প রক্তক্ষরণ হয় কিন্তু ঠিকমত চিকিৎসা ও ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী থাকলে শেষ পর্যন্ত সন্তান প্রসব সম্ভব।

০ একটোপিক প্রেগনেন্সিঃ জরাযু ছাড়া পেটের ভিতরে অন্য কোন যায়গায় (যেমন টিউব, ডিম্বাশয়) যদি ভ্রুন স্থাপিত হয় তবে তাকে একটোপিক প্রেগনেন্সি বলে। মাসিক বন্ধ হওয়ার পর পেটে ব্যাথার সাথে সাথে হালকা রক্তপাত এর প্রধান লক্ষণ। ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী কিছু পরীক্ষা নিরীক্ষার মাধ্যমে একটোপিক প্রেগনেন্সি কিনা তা জানা যায়।

০ ইমপ্লেনটেশন রক্তপাতঃ বাচ্চা নষ্ট হবার সম্ভাবনা ছাড়াই কোন কোন রোগীর ক্ষেত্রে জরায়ুতে ভ্রুন স্থাপিত বা ইমপ্লেনটেশন এর সময় রক্তপাত হতে পারে। সাধারণত কনসেপশনের ছয় থেকে বার দিন পর এরকম হতে পারে। অনেকে এটাকে মাসিক মনে করতে পারেন কিন্তু পরবর্তীতে কিছু দিন পর পরীক্ষা নিরীক্ষার মাধ্যমে কনসেপশন হয়েছে কিনা তা নিশ্চিত হওয়া যায়।


samakalnews24.com এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

স্বাস্থ্য বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ