২১শে মে, ২০১৯ ইং ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

samakalnew24
samakalnew24
শিরোনাম:
যাকাত দিলে সম্পদ বাড়ে ! ব্রীজ মেরামতে সময় ক্ষেপন তালতলী উপজেলা সদরের সাথে সারা... জামালপুরের দেওয়ারগঞ্জ পৌর মেয়রের বিরুদ্ধে মামলার... বগুড়ায় গ্যাস ট্যাবলেট সেবনে কাকি ভাতিজা আত্মহত্যা ! বরগুনায় বশতঘর নির্মানে বাধা” ৩ লক্ষ্য টাকা চাদাঁদাবীর...

ইসি’র নির্দেশ অমান্য করে এমপি ফারুক চৌধুরী এলাকায়

  সমকাল নিউজ ২৪

নাজিম হাসান,রাজশাহী প্রতিনিধি:
নির্বাচনি আচরণবিধি ভঙ্গের অভিযোগে রাজশাহী-১ আসনের এমপি ওমর ফারুক চৌধুরীকে নির্বাচন কমিশন (ইসি) থেকে নির্বাচনি এলাকা ছাড়ার নির্দেশ দেওয়া হলেও তিনি এলাকা ছাড়েননি। নির্দেশ অমান্য করেছেন বলে বৃহস্পতিবার বিকেলে নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয়ে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন গোদাগাড়ী উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী মো: বদিউজ্জামান। অভিযোগে তিনি এমপি ওমর ফারুক চৌধুরীর বিরুদ্ধে নির্বাচনকে প্রভাবিত ও প্রিজাইডিং অফিসারদের টাকার প্রভোলন দেয়ার অভিযোগ আনেন। অভিযোগপত্রে তিনি বলেন, অত্যন্ত উদ্বেগের সাথে জানাচ্ছি যে, গোদাগাড়ী তানোরের এমপি ওমর ফারুক চৌধুরী উপজেলা নির্বাচনকে প্রভাবিত করার জন্য প্রিজাইডিং অফিসারদের সাথে গোপন বৈঠকে মিলিত হয়েছেন। তিনি গোদাগাড়ীর বিভিন্ন কলেজের অধ্যক্ষ, উপাধ্যক্ষ ও শিক্ষদের ডেকে উনার বাসায় তাদের ওপর চাপ প্রয়োগ ও প্রলোভন দেখাচ্ছেন। আমি বিভিন্নভাবে জানতে পেরেছি যে, তিনি নির্বাচনে কারচুপি করার জন্য তার পছন্দ মতো প্রিজাইডিং অফিসারদের সাথে গোপন বৈঠক করছেন। ইতিমধ্যে তিনি আমাকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছেন, যা গণমাধ্যমে প্রকাশ হয়েছে। আমি মনে করি এখন পর্যন্ত প্রিজাইডিং অফিসার হিসেবে যাদের তালিকা করা হয়েছে তারা নির্বাচনে দায়িত্ব পালন করলে নির্বাচনে কারচুপি হবে। সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে প্রিজাইডিং অফিসার হিসেবে তাদের তালিকা বাতিল করে প্রশাসনের নিরপেক্ষ প্রিজাইডিং অফিসার দিয়ে নির্বাচন কার্যক্রম করলে নির্বাচন সুষ্ঠু হবে বলে আমি মনে করি।এদিকে,নির্দেশ অমান্য করে বৃহস্পতিবার বিকেলে তিনি তানোরের একটি আলোচনা সভায় বক্তব্য দিয়েছেন। আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবস পালনের নামে উপজেলার মুন্ডুমালা সরকারি উচ্চবিদ্যালয় মাঠে উপজেলা আওয়ামী লীগ এই আলোচনা সভার আয়োজন করে। এতে ওমর ফারুক চৌধুরী প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন। অনুষ্ঠানের শুরুতে এই মঞ্চে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের চেয়ারম্যান প্রার্থী লুৎফর হায়দার রশিদ ময়না বক্তব্য রাখেন। অবশ্য তখনও ফারুক চৌধুরী সভামঞ্চে গিয়ে পৌঁছাননি। প্রার্থী বক্তব্য দিয়ে চলে যাওয়ার পরে এমপি মঞ্চে যান। এবিষয়ে নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা ও রাজশাহীর অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) জুলকার নায়ন বলেন, নির্বাচন কমিশনের নির্দেশনা পৌঁছে দেওয়ার পাশাপাশি এমপিকে ফোনেও বিষয়টি অবহিত করা হয়েছে। এরপরেও তিনি নির্বাচনি এলাকায় গিয়েছেন এটা তাদের জানা নেই। আগামী ১০ মার্চ অনুষ্ঠিত উপজেলা পরিষদ নির্বচনকে একটি সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন করার জন্য প্রিজাইডিং অফিসার হিসেবে তৈরিকৃত তালিকা বাতিল করে নতুন তালিকা করার জন্য রিটার্নিং কর্মকর্তার নিকট আহ্বান জানান তিনি।#

Print Friendly, PDF & Email

প্রতিদিনের খবর পড়ুন আপনার ইমেইল থেকে
রাজশাহী বিভাগ বিভাগের সর্বশেষ
ওপরে