২৫শে এপ্রিল, ২০১৯ ইং ১২ই বৈশাখ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

samakalnew24
samakalnew24
শিরোনাম:
তানিয়ার চোখ দিয়ে বের হচ্ছে পাথর, ধান ও পাতা! ধেয়ে আসছে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় প্রেমিকের প্রতারণা, ভিডিও কলে জীবন দিল ইডেন ছাত্রী! রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আগুন, মসজিদসহ ৩০ ঘর ভস্মীভূত রাজশাহীর চারঘাটে মানসম্মত প্রাথমিক শিক্ষা নিশ্চিতকরণে...

উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে লড়তে চান সাবেক ছাত্র নেতা রিয়াজ।

 এস.এম রায়হান উদ্দীন / কোটচাঁদপুর (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধি। সমকাল নিউজ ২৪

আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে কোটচাঁদপুর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে লড়তে চান কোটচাঁদপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ও বর্তমান জেলা যুবলীগ সদস্য রিয়াজ হোসেন ফারুক। এরইমধ্যে দলের বিভিন্ন স্তরের নেতাকর্মীদের সাথে নির্বাচন কেন্দ্রীক মতবিনিময় শুরু করেছেন এই তরুণ ছাত্র নেতা। দিন রাত সভা-সমাবেশ উঠান বৈঠক ও নিজ দলের তৃণমূলের কর্মী সমর্থকরে সাথে মতবিনিময় করছেন। সেই সাথে সাধারণ ভোটারদের দারে দারে গিয়ে তাদের বিভিন্ন সমস্যা ও চাওয়া-পাওয়ার কথা শুনছেন।

উপজেলার বিভিন্ন হাট-বাজার ও পাড়া মহল্লায় চালাচ্ছেন গণসংযোগ যুক্ত আছেন বিভিন্ন সামাজিত কর্মকান্ডে। সাবেক ছাত্র নেতার এই প্রচারণায় এরইমধ্যে ব্যপক সাড়া পড়েছে উপজেলায়। বিশেষ করে তরুণ প্রজন্মের মধ্যে ক্লিন ইমেজের নেতা হিসেবে তার গ্রহণ যোগ্যতা ও জনপ্রিয়তা বেড়ে গেছে বহুগুনে।

সাবেক ছাত্রলীগ নেতা রিয়াজ হোসেন ফারুক ২০০৪ সালে কোটচাঁদপুর উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম-আহবায়ক মনোনীত হয়ে ২০১২ সাল পর্যন্ত দায়িত্ব পালন করেন এবং সফল সংগঠক হিসেবে ২০১২ সালে সম্মেলনের মাধ্যমে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি নির্বাচিত হনএবং ২০১৭ সাল পর্যন্ত নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করেন।

এদিকে সাবেক ছাত্রনেতা রিয়াজ হোসেন ফারুক বলেন, আ,লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তরুণ নেতাদের নিয়ে সরকার গঠন করেছেন। প্রধানমন্ত্রী তরুণ প্রজন্মকে অগ্রাধিকার

এছাড়া বিগত ২০১৪ সালের উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আমি ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছিলাম। কিন্তু দলীয় সিদ্ধান্তে আমি আমার মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহার করে নিয়েছিলাম, সেই থেকে আজ পর্যন্ত দলের নিয়ম-শৃঙ্খলা বজায় রেখে দলীয় কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছেন। এবং নিয়মিত এলাকার সাধারণ মানুষের সাথে যোগাযোগ রেখে চলেছি। এইজন্য আমি মানুষের ভালোবাসায় সিক্ত হয়ে তাদের পাশে দাড়াতে এবারও কোটচাঁদপুর উপজেলা ভাইস চেয়াম্যান পদে লড়তে চায়। রিয়াজ হোসেন বলেন, আমি নির্বাচিত হলে জনগনের জন্য ভাল কিছু করার সুযোগ পাব বলে মনে করি। বিশেষ করে বেকার সমস্যা সমাধান, রাস্তা ঘাটের উন্নয়ন ও সবাইকে সাথে নিয়ে মাদকের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করব।

নির্বাচন বিষয়ে তিনি বলেন, ছাত্রজীবন থেকে রাজনীতি করি। প্রত্যেক রাজনীতিবিদের স্বপ্ন থাকে জনপ্রতিনিধি নির্বাচিত হয়ে জনমানুসের কল্যাণে কাজ করা। জনগন আমাকে নির্বাচিত করলে স্থানীয় সরকারের সকল সুযোগ-সুবিধা প্রান্তিক মানুষের কাছে পৌঁছে দেব। এবং সব সময় নিজেকে মানুষের কল্যানে নিয়োজিত রাখার দৃঢ় প্রত্যয় ব্যাক্ত করেন।

Print Friendly, PDF & Email

প্রতিদিনের খবর পড়ুন আপনার ইমেইল থেকে
ঝিনাইদহ বিভাগের আলোচিত
ওপরে