২২শে আগস্ট, ২০১৯ ইং ৭ই ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

samakalnew24
samakalnew24
শিরোনাম:
আখাউড়ায় ট্রেনে ছি’নতাই কালে তিন মহিলা ছি’নতাইকারী... স্পেনে বালাগঞ্জ সমাজ কল্যাণ সংস্থা’র ঈদ পুনর্মিল’নী... স্বাধীনতার নিপুণ রূপকার স্বাধীনতার স্থপতি বঙ্গবন্ধু... রিফাত শরিফ হ’ত্যা মামলায় মি’ন্নিসহ ১৪ আসামীর আদালতে... বৃষ্টি এলেই বাজে ছুটির ঘন্টা !

প্রশাসন নিরব ভুমিকায় তাহেরপুরে রমজান মাসে বেড়ে চলেছে নিত্যপণ্যের দাম,যেনো দেখার কেউ নাই

  সমকাল নিউজ ২৪

নাজিম হাসান,রাজশাহী প্রতিনিধি:
ভ্রাম্যমান আদালত ও বাজার মনিটরিংয়ের ব্যবস্থা না থাকায় রোজার শুরুর থেকে রাজশাহীর তাহেরপুর পৌরসভার হাট- বাজারে নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বেড়ে চলেছে। বিশেষ করে যেসব পণ্য ইফতার ও সেহরির সময় লাগে, সেসব দ্রব্যের বেড়েছে বেশি। দাম বেড়ে যাওয়ায় বাজারে জিনিসপত্র কিনতে গিয়ে হিমশিম খেতে হচ্ছে গরিব ও মধ্যবিত্ত শ্রেণির মানুষদের। এদিকে,আওয়ামীলীগ সরকার ঢাক ঢোল পিটিয়ে মুখে বিভিন্ন প্রতিশ্রতি দিলেও তা আজ পর্যান্ত বাস্তবায়ন করেনি তাহেরপুর পৌরসভায়। এছাড়া বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন,বাজারে সব পণ্যের পর্যাপ্ত মজুত রয়েছে। তাই দাম বাড়ার কোনো কারণ নেই। রজমানে ভোগ্য পণ্যের দাম এক টাকাও বাড়বে না এমনটা বললেও চাল,ডাল,ছোলা,রসুন,পেঁয়াজ,আলু থেকে শুরু করে সব ধরনের পণ্যই বিক্রি হচ্ছে কেজিতে ৩ থেকে ১০ টাকা বেশি দরে। কোনো কোনো পণ্যের ক্ষেত্রে দাম বেড়েছে তার চেয়েও বেশি। দু-তিন দিনের মাথায় বাজারের এই লাগামহীন ঊর্ধ্বগতিতে ক্রেতাদের মাঝে ক্ষোভ দেখা দিয়েছে। অথচ রাজশাহী জেলা প্রশাসকের নির্দেশক্রমে ও ভোক্তাদের স্বার্থে রাজশাহীতে রমজান মাস জুড়ে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হবে বললেও এখন পর্যান্ত বাজার মনিটরিংয়ের জন্য রোজার শুরুর থেকে এখন পর্যান্ত তাহেরপুর পৌরসভায় কাউকেই দেখা যায়নি। কিন্তু বাজার পর্যক্ষেণের পাশাপাশি ব্যবসায়ীদেরকে সতর্ক করা হয়েছে। তাদের যে বিষয়গুলো জানা নেই সেগুলো তাদের জানানো হচ্ছে। মূল্য তালিকা দোকানে ঝুলিয়ে রাখার বিষয়টিসহ ব্যবসায়ীদের কর্তব্যের বিষয়গুলো জেলা প্রশাসকের নির্দেশক্রমে শুরু হয়েছে পবিত্র রমজান মাসে। এই মাসটিকে কেন্দ্র করে বেশকিছু নিত্যপণ্যের চাহিদা বাড়ে। এরমধ্যে ভোজ্যতেল,পেঁয়াজ,রসুন,ছোলা,খেজুর ও চিনিসহ নানা পণ্য রয়েছে। আর এসব পণ্যকে কেন্দ্র করে এরইমধ্যে অস্থির নিত্যপণ্যের বাজার। প্রায় পাল্লা দিয়ে একই সঙ্গে দাম বেড়েছে মাছ,মাংস, সবজি এবং ফলমূলের। রমজানকে কেন্দ্র করে ইচ্ছেমতো দাম বাড়িয়েছেন ব্যবসায়ীরা। কিন্তু বাজার মনিটরিং ও ভ্রাম্যমান আদালত না থাকায় পাইকারি ও খুচরা ব্যবসায়ীরা ইচ্ছেমতো দাম বাড়িয়ে। ফলে গরিব ও মধ্যবিত্ত শ্রেণির মানুষরা বাজারে জিনিসপত্র কিনতে গিয়ে হিমশিম খেতে হচ্ছে। এবং তারা জিনিসপত্র না কিনে খালি হাতে বাড়ি ফিরে যাচ্ছে। এসময় অনেকে অভিযোগ করে বলেন,বাগমারা উপজেলা নির্বাহী অফিসার জাকিরুল ইসলাম দির্ঘ দুই বছর ধরে বাগমারা অবস্থান করছেন। কিন্তু অজ্ঞাত কারনে তিনি দুই বছরেও তাহেরপুর পৌরসভায় এক দিনও ভ্রাম্যমান আদালত বা অভিযান পরিচালনা না করায় পাইকারি ও খুচরা ব্যবসায়ীরা ইচ্ছেমতো তাদের দাম বাড়িয়ে ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। তবে স্থানীয় প্রশাসন রয়েছে চুপ যেনো দেখার কেউ নাই। এবিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যলয়ে যোগাযোগ করে নির্বাহী অফিসার জাকিরুল ইসলামকে না পাওয়ায় তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি।#

Print Friendly, PDF & Email

প্রতিদিনের খবর পড়ুন আপনার ইমেইল থেকে
রাজশাহী বিভাগ বিভাগের সর্বশেষ
ওপরে