১২ই নভেম্বর, ২০১৯ ইং ২৭শে কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

samakalnew24
samakalnew24
শিরোনাম:
বরগুনায় নির্বাচনকে কেন্দ্র করে একজনকে পিটিয়ে গুরুতর... ইবিতে ‘এ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ বরগুনায় গাছ থেকে পড়ে যুবকের মৃ’ত্যু নবীগঞ্জে অসহায় মহিলার বাড়িঘর ভাংচুর-গাছপালা বিনষ্ট ॥... ট্রেন দূর্ঘটনায় চাঁদপুরের স্বামী-স্ত্রীসহ নি’হত ৩,...

বেনাপোল চেকপোস্ট কাস্টমসের বিরুদ্ধে অভিযোগ।

 মোঃ রাসেল ইসলাম,বেনাপোল(যশোর)প্রতিনিধি। সমকালনিউজ২৪

বেনাপোল চেকপোষ্ট কাস্টমস কর্তৃক পাসপোর্টযাত্রী হয়রানি ও উৎকোচ আদায়ের অভিযোগ করেছে ভারতীয় পাসপোর্টযাত্রী রুপালী দে ও রাখালচন্দ্র হালদার।

 

মঙ্গলবার ভারতীয় এ পাসপোর্টযাত্রীরা অভিযোগ করে বলেন কাস্টমস (এ আর ও) বিজন কুমার ওরফে টাক বিজন ও রহিমা আক্তার ওরফে পাকরা রহিমা তাদের নিকট থেকে পৃথক ভাবে ২০০০ হাজার ও ৩০০০ হাজার টাকা চায়। টাকা না দিতে পারায় তাদের সকল পন্য তারা রেখে দেয়। পাসপোর্টযাত্রী রুপালী দে ( পাসপোর্ট নাং এস ০০০৩৪৪৯) বলেন সে বাংলাদেশে দ্বিতীয়বার তার আত্তীয় বাড়ি খুলনা বেড়াতে আসার সময় তার ব্যাগে তার ব্যবহৃত ৮টি শাড়ি নিয়ে আসছিল। কারন আত্তীয় বাড়ি কয়েকদিন সে থাকবে তার জন্য বাড়ি থেকে তার গাঁয়ের একসেট সহ আরো ৮টি কাপড় নিয়ে আসে।

 

এরজন্য এ আর ও রহিমা খাতুন তার নিকট ৩০০০ হাজার টাকা দাবী করে। তখন রুপালী বলে আমি কেন আপনাকে তিন হাজার টাকা দিব আমি তো অবৈধ কোন পন্য আনি নাই। আমি আমার ব্যবহৃত পন্য এনেছি। তখন রহিমা ক্ষিপ্ত হয়ে আমাকে বেয়াদব মহিলা বলে কাপড়গুলি রেখে একটি স্লিপ রেখে দেয়। অপরদিকে রাখাল চন্দ্র হালদার বলেন ( পাসপোর্ট নং- জেড ৪৮৮০৬১৫) আমি ভারতীয় রুপির মাত্র ৭ হাজার টাকার বিভিন্ন পন্য নিয়ে বাংলাদেশে আমার আত্তীয় বাড়ি বেড়াতে যাওয়ার জন্য আসি। তখন এ আর ও বিজন কুমার আমার নিকট থেকে ২০০০ হাজার টাকা দাবী করে। এ দাবীতে আমি রাজি না হলে তিনি আমার পন্য কেড়ে রেখে দেয়, এবং একটি স্লিপ হাতে ধরিয়ে দেয়।

 

এ ব্যাপারে বেনাপোল চেকপোস্ট কাস্টমস সুপার সমীর এর সাথে কথা হলে তিনি বলেন ভারতীয় নাগরিক কোন পন্য নিয়ে আসতে পারবে না। তারা কেন পন্য নিয়ে আসবে। প্রতিদিন হাজার হাজার ল্যাগেজ বের হয় এ আর ও দের টাকা দিয়ে তখন কেন বাধা দেন না, এ প্রশ্নের জবাবে বলেন এটা হওয়ার কথা না যদি এ রকম হয় আমি বিষয়টি দেখব।

প্রতিদিনের খবর পড়ুন আপনার ইমেইল থেকে
যশোর বিভাগের আলোচিত
ওপরে