৩রা জুলাই, ২০২০ ইং ১৯শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

samakalnew24
samakalnew24
শিরোনাম:
বরগুনায় অপহরণের আসামি আটক কোভিড-১৯ বগুড়ায় আ’লীগ নেতার মৃ’ত্যু বরগুনার বদরখালীতে ঝুকিপুর্ন স্টিল ব্রিজ দুর্ঘটনার... জামালপুরে বন্যার পানিতে পড়ে সহোদর ভাই-বোনসহ ৩ শিশুর... ঝালকাঠিতে ৫শ পিচ ই’য়াবাসহ নারী মা’দক ব্যবসায়ী আটক

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় পৃথক ঘটনায় দুইজনকে হ’ত্যা; আটক-২

  সমকালনিউজ২৪

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সংবাদদাতাঃ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় প্রেম সংক্রান্ত ঘটনায় শুভ হোসেন নামে এক যুবক ও মাটি কাটা নিয়ে বিরোধে শিশু মিয়া নামে এক বৃদ্ধ হ’ত্যা হয়েছেন।

মঙ্গলবার (৩০ জুন) রাতে পৌর এলাকার বণিকপাড়া ও সদর উপজেলার মজলিশপুর ইউনিয়নের আনন্দপুর গ্রামের পৃথক খুনের ঘটনা ঘটে।

নি’হত শুভ কান্দিপাড়ার মকবুল হোসেনের ছেলে ও শিশু মিয়া আনন্দপুর গ্রামের মৃত কফিল উদ্দিনের ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, নয়নপুর এলাকার তুষার নামের এক তরুণের সঙ্গে শুভর বোনের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। এ নিয়ে কয়েক মাস আগে শুভর সঙ্গে তুষারের কথা কাটাকাটি হয়। ঘটনার দিন সন্ধ্যার পর শহরের বণিকপাড়া এলাকায় আবারও শুভর সঙ্গে তুষারের কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে শুভকে ছু’রিকাঘাত করে তুষার ও তার বন্ধু প্রান্ত মালাকার।

পরে গুরুতর আহত অবস্থায় শুভকে উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে ঢাকায় পাঠান। ঢাকায় নেয়ার পথে শুভ মা’রা যায়।

এদিকে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় আনন্দপুর এলাকায় মাটিকাটা সংক্রান্ত বিরোধের জেরে শিশু মিয়া (৬০) নামে এক বৃদ্ধকে টেঁটা দিয়ে খুঁচিয়ে হ’ত্যা করা হয়েছে।

পুলিশ ও নি’হতের স্বজনেরা জানান, মাটি কাটা নিয়ে প্রতিবেশিদের সঙ্গে বিরোধের জের ধরে সন্ধ্যার দিকে আনন্দপুর এলাকায় পূর্ব পরিকল্পিতভাবে একদল সন্ত্রাসী শিশু মিয়ার পুত্র ইকবালকে টেঁটা দিয়ে আঘাত করে। পরে শিশু মিয়াসহ অন্যরা এগিয়ে গেলে সন্ত্রাসীরা শিশু মিয়াকেও টেঁটা দিয়ে আঘাত করে। এতে ঘটনাস্থলে শিশু মিয়া প্রাণ হারান। পরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে নিয়ে আসা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ সেলিম উদ্দিন দুই হ’ত্যাকাণ্ডের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, শুভ খুনের ঘটনায় জড়িত তুষার ও প্রান্তকে আটক করা হয়েছে। আর শিশু মিয়া হ’ত্যা ঘটনায় জড়িত উজ্জলসহ অন্যদের গ্রে’ফতার চেষ্টা করা হচ্ছে।

প্রতিদিনের খবর পড়ুন আপনার ইমেইল থেকে
ব্রাহ্মনবাড়িয়া বিভাগের সর্বশেষ
ব্রাহ্মনবাড়িয়া বিভাগের আলোচিত
ওপরে