২৫শে এপ্রিল, ২০১৯ ইং ১২ই বৈশাখ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

samakalnew24
samakalnew24
শিরোনাম:
প্রথমবারের মতো কিম-পুতিন বৈঠক এমপি হিসেবে শপথ নিলেন বিএনপির জাহিদুর নওগাঁর আত্রাইয়ে ট্রেনের ধাক্কায় এক যুবকের মৃত্যু খাগড়াছড়ির দীঘিনালায় কিশোরের মরদেহ উদ্ধার ফেনী কেন্দ্রীয় সমবায় ব্যাংকের চেয়ারম্যান নিজাম হাজারী...

মহাসড়কে পন্যবাহী গাড়ী পাকিং বন্ধের দাবিতে মংলায় মানববন্ধন পালিত।

 মোঃ মাসুদ রানা, মংলা প্রতিনিধি। সমকাল নিউজ ২৪

মোংলা-খুলনা মহাসড়কে পন্যবাহী গাড়ী পাকিং বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন পালন করেছে এলাকাবাসী। সোমবার দুপুর ১২টার দিকে সড়কটির মোংলা উপজেলা দ্বিগরাজের আপারবাড়ী এলাকায় ওই মানববন্ধনে কয়েকশ নারী পুরুষ অংশ গ্রহন করেন। সড়কটি ঝানজন মুক্ত, সর্বক্ষনিক সচল ও দুর্ঘটনা মুক্ত রাখার দাবীতেই মাবনবন্ধনের আয়োজন করে স্থানীয়রা। মানববন্ধনে অংশগ্রহন কারীরা জানান, মোংলা উপজেলা ও বন্দর সংলগ্ন শিল্প এলাকার অধিকাংশ শিল্প প্রতিষ্ঠানের পন্যবাহী গাড়ী গুলো দ্বিগরাজের আপার বাড়ী এলাকা থেকে মোংলা বন্দর জেটি পর্যন্ত রাস্তার দুপাশ্বে কয়েকশতাধিক ট্রাক ও মালমালবাহী গাড়ী প্রতিনিয়ত পাকিং করে রাখায় প্রায়ই ঘটছে সড়কের এ অংশে দূর্ঘটনা। যানজট লেগেই থাকে সড়কের দীর্ঘ ১০ কিলোমিটার এলাকায়। চরম ভোগান্তীতে পড়তে হচ্ছে স্থানীয় বাসিন্ধাদের। মানববন্ধনে অংশগ্রহনকারী স্থানীয় ব্যাবসায়ী মোঃ আব্বাস ইজারাদার জানান, বন্দরের আবাসীক থেকে শুরু করে দ্বিগরাজের আপাবাড়ী পর্যন্ত বেশ কয়েকটি আবাসীক এলাকায় হাজার হাজার লোক বসবাস করে আসছে। এরা সব সময় মোংলা-খুলনা মহাসড়কদিয়ে চলাচল করে।

এছাড়া এখানে রয়েছে বড় একটি বাজার, রয়েছে ৮ থেকে ১০টি স্কুল, মাদ্রাসা ও দ্বিগরাজ মাহ-বিদ্যালয়, নৌ-বাহিনীার স্কুল এন্ড কলেজ, নৌবাহিনীর নৌঘাটি ও কোষ্টগার্ড পশ্চিম জোন। এ প্রতিষ্ঠান গুলোর কয়েক হাজার ছাত্র/ছাত্রী, নৌ ও কোষ্টগার্ড সদস্যাদের ছেলে মেয়ে এ সড়ক দিয়ে স্কুল কলেজে যেতে হয়। কিন্ত এখানকার শিল্প প্রতিষ্ঠানের পন্যবাহী গাড়ী গুলো সড়কের দু’পাশ অবৈদবাবে পার্কিং’র মাধ্যমে দখল করে রাখে। তাদের দাবী, মোংলা বন্দর ট্রাক টার্মিনাল ফাকা থাকলেও শিল্প প্রতিষ্ঠানের পন্যবাহী গাড়ী গুলো সেখানে না রেখে সব সময় রাস্তার দুইপাশে জমা করে রাখে। অন্য দিকে সড়কটিতে সকল শিল্প প্রতিষ্ঠান আর মোংলা বন্দর থেকে কয়েক হাজার পন্যবাহী গাড়ী প্রতিনিয়ত বের হয়। এ কারনে সড়কের দুপাশ্বে পার্কিংয়ের ফলে যানজট লেগেই থাকে। এ নিয়ে সরকারের কোন কর্তৃপক্ষ ব্যবস্থা নেননি কোন সময়। আর তাই আমরা স্থানীয়রা আজ রাস্তায় নামতে বাধ্য হয়েছি। মোংলার শিল্প এলাকায় প্রায় অর্ধশত শিল্প প্রতিষ্ঠান সচল রয়েছে। এসব প্রতিষ্ঠান গুলোর পন্যবাহী যানবাহন মোংলা ট্রাক ট্রার্মিনাল আর তাদের কারখানার ভিতরে রাখতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার জন্য সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ চান স্থানীয়রা।

Print Friendly, PDF & Email

প্রতিদিনের খবর পড়ুন আপনার ইমেইল থেকে
বাগেরহাট বিভাগের সর্বশেষ
বাগেরহাট বিভাগের আলোচিত
ওপরে