২০শে নভেম্বর, ২০১৯ ইং ৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

samakalnew24
samakalnew24
শিরোনাম:
আক্কেলপুর পৌর মেয়রের সচেতনতায় লবণ লঙ্কায় দিশেহারা হয়নি... লবণের দাম বৃদ্ধি গুজবে বেনাপোল বাজারে ক্রেতাদের ভিড় দক্ষিণ সুনামগঞ্জে বাজার মনিটরিংয়ে ইউএনও, ৭... ঠাকুরগাঁওয়ে অতিরিক্ত মূল্যে লবন বিক্রি : তিন ব্যবসায়ীর... চাঁদপুরের দুই গ্রুপের দ্বন্দ্বে মা’দক বি’রোধী...

সংকীর্ণ দৃষ্টিভঙ্গি! ছোট মন-মানসিকতার প্রকাশ, ছাতকের জনপ্রতিনিধি’র ।

  সমকালনিউজ২৪

ছাতক প্রতিনিধি ::

আরেকটি সংকীর্ণ দৃষ্টিভঙ্গি ও অনুন্নত মন-মানসিকতা’র নজির স্থাপন করলেন ছাতকের জনপ্রতিনিধি। যার ঐকান্তিক প্রচেষ্টা ও অক্লান্ত পরিশ্রমের ফলে ছাতকের কৃতি সন্তান জ্ঞানের সাধক লোককবি ফকির দূর্বিন শাহ’কে জেলা পর্যায়ে ও জাতীয় পর্যায়ে সঠিক মান-মর্যাদা দান করা হয়েছে তিনি হলেন সাবেক ছাতক উপজেলার চেয়ারম্যান অলিউর রহমান চৌধুরী বকুল ৷

অত্যন্ত পরিতাপের বিষয় হল এই যে, আজকে সেই লোককবি দূর্বিন শাহ’র ৯৯তম জন্মবার্ষিকীতে উপজেলার সাবেক এই চেয়ারম্যান উপেক্ষিত ও অবহেলিত৷ নূন্যতম মানবিক মূল্যবোধ ও কৃতজ্ঞতার্থে হলেও আজকের এই জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে নূন্যতম দাওয়াত টুকু তিনি পাওয়ার দাবি রাখেন৷ এমনকি তিনি এটার যোগ্য দাবিদার ৷

কেননা, বাংলাদেশে যে ক’জন মরমি কবি, বাউল সাধক ও লোককবি ছিলেন তাদের মধ্যে অন্যতম ছিলেন আমাদের এই ছাতকের কৃতি সন্তান লোককবি দূর্বিণ শাহ৷ অথচ তৎকালীন সময়ে কোন এক অজানা কারণে বাংলাদেশের সব ক’

জন বাউল সাধক ও লোককবির নামের তালিকায় তাঁর জায়গা হয় নাই৷

যার ফলে তাঁর যোগ্য মানসম্মান, মর্যাদা ও সম্মাননায় নানাভাবে উপেক্ষিত ছিলেন৷ পরবর্তী সময়ে যখন অলিউর রহমান চৌধুরী বকুল দূর্বিণ শাহকে তাঁর প্রাপ্য সম্মান ও মর্যাদা দানের জন্য তৎকালীন সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসকের নিকট আবেদন করলেন এবং একই সাথে জাতীয় পর্যায়েও যাতে তাকে সম্মাননা প্রদর্শন করা হয় সেই ব্যবস্থা করলেন৷ যার ফলে লোককবি দূর্বিণ শাহ আজ সমগ্র বাংলাদেশ সুপরিচিত ও স্বখ্যাতিতে সুপ্রতিষ্ঠিত৷

নিঃসন্দেহে অলিউর রহমান চৌধুরী বকুল একজন সংস্কৃতিপ্রেমী জনপ্রতিনিধি ছিলেন৷ কেননা, তিনি যখন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব থাকাকালে তৎকালীন সময়ে সম্পূর্ণ নিজস্ব অর্থায়নে উপজেলা পরিষদ চত্বরে জ্ঞানের সাধক দূর্বীণ শাহ’র নামানুসারে স্থায়ী “দূর্বীন শাহ মঞ্চ” নির্মাণ করেছিলেন৷

যা করতে গিয়ে সরকারীভাবে উপজেলা পরিষদ তথা ওপর মহল থেকে কোনধরনের সাহায্য-সহযোগিতা কিংবা সমর্থন পাননি বরঞ্চ এটা করতে গিয়ে নানা বাঁধা-বিপত্তির মুখে পড়তে হয়েছে তাকে৷ যদিও আজ তাঁরই নিজ হাতে গড়া স্থায়ী মঞ্চে নানাবিধ আয়োজনে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে এবং সে জায়গায় দাড়িয়েই জনৈক জনপ্রতিনিধিবৃন্দ সুবক্তার অধিকারী হচ্ছেন৷ অথচ কী নির্মম পরিহাস আজ তিনিই উপেক্ষিত৷ যা একটি সংকীর্ণ মানসিকতার ও অনুন্নত রাজনীতি আরেকটা নজিরবিহীন দৃষ্টান্ত প্রত্যক্ষ করল সচেতন ছাতকবাসী৷

 

‘বিদ্রঃ সমকালনিউজ২৪.কম একটি স্বাধীন অনলাইন পত্রিকা। সমকালনিউজ২৪.কম এর সাথে দৈনিক সমকাল এর কোন সম্পর্ক নেই।’

প্রতিদিনের খবর পড়ুন আপনার ইমেইল থেকে
সুনামগঞ্জ বিভাগের সর্বশেষ
সুনামগঞ্জ বিভাগের আলোচিত
ওপরে